কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয়

 ব্যবসায় বাণিজ্যের প্রসার একসময় করা হতো নানাভাবে বিজ্ঞাপন দিয়ে। তবে ডিজিটাল এই বিশ্বে এখন সবকিছুই অনেক সহজ হয়ে গিয়েছে। পৃথিবীর সবচেয়ে বড় সামাজিক মাধ্যমে হলো ফেসবুক। ফেসবুক যে শুধু বিনোদন কেন্দ্র এমনটি নয়। এই বিশাল প্লাটফর্মকে ব্যবহার করে ব্যবসাকে ব্যাপক হারে প্রসারিত করা হচ্ছে এবং প্রচুর পরিমাণে অর্থ উপার্জন করা সম্ভব হচ্ছে।


ফেসবুক মার্কেটিং নিঃসন্দেহে একটি অর্থ উপার্জনের অন্যতম উৎস। ফেসবুক মার্কেটিং এর মাধ্যমে পণ্য ও সেবা অসংখ্য মানুষের কাছে পৌঁছে যাচ্ছে এবং বিক্রয়ের পরিমাণ অস্বাভাবিকভাবে দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

ফেসবুক মার্কেটিং এর নির্দিষ্ট কিছু নিয়মকানুন রয়েছে যেগুলো অনুসরণ করে এ কাজটিতে সফলতা অর্জন করা সম্ভব। আজকে আমরা কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয় এ বিষয়টি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করব। বর্তমান বিশ্বে ফেসবুক মার্কেটিং কে অসংখ্য মানুষ পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছে। তাই অবশ্যই এ বিষয়ে সঠিক এবং সম্পূর্ণ ধারণা থাকা আবশ্যক। এক নজরে এই বিষয়টি সম্পর্কে দেখে নিন।

পেজ সূচিপত্রঃ

কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয় এ বিষয়টি জানার আগে জানতে হবে যে ফেসবুক মার্কেটিং কি? কারণ ফেসবুক মার্কেটিং কাকে বলে এ বিষয়টি সম্পর্কে না জানলে মার্কেটিং এর কাজ করবেন কিভাবে? তাহলে জেনে নিন ফেসবুক মার্কেটিং সম্পর্কে।


ফেসবুক মার্কেটিং হল এমন একটি যোগাযোগ মাধ্যম যার মাধ্যমে ব্যবসায়িক পণ্য এবং সেবা ফেসবুক ব্যবহারকারী অসংখ্য মানুষের নিকট পৌঁছানো হয়। আর এ প্রক্রিয়ার ফলে ব্যবসায়িক পণ্যের বিক্রয় অধিক হারে বৃদ্ধি পায়। এর প্রধান কারণ হলো, অনেকগুলো সোশ্যাল মিডিয়ার মধ্যে পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মানুষ ব্যবহার করে ফেসবুক। তাই ফেসবুককে কেন্দ্র করে এবং নির্দিষ্ট অডিয়েন্সকে টার্গেট করে ফেসবুক মার্কেটিং এর মাধ্যমে বর্তমানে ব্যবসায় এর অধিক বিক্রয় সম্পন্ন করা হয়ে থাকে। যেকোনো ব্যবসায়ের ক্ষেত্রে ইন্টারনেট এবং সোশ্যাল মিডিয়া ছাড়া এত বেশি পরিমাণ অডিয়েন্সকে ধরে রাখা সম্ভব হয় না। তাই পণ্য প্রচারের ক্ষেত্রে অন্যতম সোশ্যাল মিডিয়া হলো ফেসবুক।

ফেসবুকে এই প্রচারণাকে ফেসবুক মার্কেটিং বলা হয়। আশা করি বুঝতে পেরেছেন।

ফেসবুক মার্কেটিং কত প্রকার?

কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয় তা জানতে হলে আপনাকে অবশ্যই জানতে হবে যে ফেসবুক মার্কেটিং কত প্রকার। কারণ এর প্রকারভেদ জেনে আপনার সুবিধা অনুযায়ী অবশ্যই আপনি মার্কেটিং করবেন।

ফেসবুক মার্কেটিং মূলত দুই প্রকার। 
  1.  ফ্রি ফেসবুক মার্কেটিংঃ এই প্রক্রিয়াটিতে পণ্যের মার্কেটিং এর জন্য ব্যবসায় সংক্রান্ত একটি পেজ খুলতে পারি। এরপর পেজটিকে আকর্ষণীয় করার জন্য সুন্দর কভার ফটো দিয়ে বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে যে পণ্য রয়েছে তার ছবি আপলোড দিতে পারি। ফ্রেন্ড লিস্টে থাকা সকলকে পেজটির জন্য আমন্ত্রণ জানাতে পারি। সকলকে শেয়ারের জন্য অনুরোধ করতে পারি। এছাড়া অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে এই পণ্যগুলো শেয়ার করে আরো প্রসারিত করতে পারি। এর মাধ্যমে দেখা যায় পণ্যের প্রচারণা অসংখ্য মানুষের কাছে পৌঁছে যায়। এই প্রক্রিয়াতে কোনরকম অর্থ ব্যয় করতে হয় না। তাই এটিকে বলা হয় ফ্রি ফেসবুক মার্কেটিং।
  2. পেইড ফেসবুক মার্কেটিংঃ এ প্রক্রিয়াটিতে ব্যবসায়ী পণ্য ও সেবার মার্কেটিং এর উদ্দেশ্যে অর্থ ব্যয় করতে হয়। অর্থাৎ ফেসবুকে নিউজ ফিডগুলোতে কাঙ্খিত পণ্যগুলো দেখাতে পারি। যার জন্য এটি নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ ব্যয় করতে হবে। অনেক সময় দেখবেন ফেসবুকে স্ক্রল করতে করতে এমন অনেক কিছুই আমাদের সামনে চলে আসে যেগুলোতে স্পন্সর লেখা থাকে। এরকম হলে বুঝে নিবেন এগুলো পেইড ফেসবুক মার্কেটিং। অর্থাৎ এ বিজ্ঞাপন গুলোর জন্য অর্থ ব্যয় করা হয়েছে। 

ফেসবুক মার্কেটিং করার নিয়ম

যে কোন কাজেরই নির্দিষ্ট কিছু নিয়ম কানুন থাকে। এই ক্ষেত্রেও ভিন্ন কিছু নয়। ফেসবুক মার্কেটিং করতে গেলে কিছু নির্দিষ্ট নিয়ম কানুন মেনে চলতে হয়। চলুন তাহলে জেনে নিন ফেসবুক মার্কেটিং করার নিয়ম সম্পর্কে।
  • সর্বপ্রথম ফেসবুকে ব্যবসায়ের উদ্দেশ্যে একটি পেজ খুলতে হবে।
  • যে সকল পণ্য নিয়ে ব্যবসা শুরু হতে যাচ্ছে তার সাথে সামঞ্জস্য রেখে ব্যবসায়ের একটি নির্দিষ্ট নাম দিতে হবে।
  • প্রতিষ্ঠানের একটি লোগো দিতে হবে এবং প্রোফাইল পিকচার সেট করতে হবে।
  • পেজটিতে পণ্যের স্পষ্ট এবং সুন্দর ছবি আপলোড দিতে হবে।
  • পণ্যের সম্পূর্ণ বিবরণ এবং পণ্য বিক্রয়ের ধরন, ক্রেতাদের উদ্দেশ্যে কোন ডিসকাউন্ট থাকলে তা উল্লেখ করতে হবে।
  • কোন বয়সের ব্যক্তিদের টার্গেট করে পণ্যগুলো বিক্রয় হবে সেটি মাথায় রেখে ফেসবুক মার্কেটিং শুরু করতে হবে।
  • নিত্যনতুন এবং আপডেট পণ্য সম্পর্কে সর্বদাই সচেতন থাকতে হবে। কারণ প্রতিনিয়ত মানুষ নতুন কিছু  আশা করে এ বিষয়টি বিবেচনায় রাখতে হবে।
  • পণ্য বিক্রয়ের পরবর্তী সার্ভিসের জন্য ব্যবস্থা রাখতে হবে।
উপরোক্ত নিয়ম কানুন গুলো মেনে চললে আশা করা যায় ফেসবুক মার্কেটিং করে কাঙ্খিত সফলতা অর্জন করা সম্ভব হবে।

ফেসবুক মার্কেটিং কিভাবে শিখব?

ফেসবুক মার্কেটিং বিষয়টি মোটামুটি সকলের জানা আছে। কিন্তু ফেসবুক মার্কেটিং কিভাবে শিখব এ বিষয়টি অনেকেই বুঝে উঠতে পারে না। তাদের সুবিধার্থে বলতে পারি, বর্তমানে ইন্টারনেটে এমন কোন কিছু নেই যে বিষয়ে খুজলে পাওয়া যায় না।

প্রথমত, গুগলে বা ইউটিউব এ সার্চ করে ফেসবুক মার্কেটিং সম্পর্কে সম্পূর্ণ ধারণা নিতে পারেন।
দ্বিতীয়ত, বর্তমানে ফ্রিল্যান্সিং এর সকল কাজের উদ্দেশ্যে বিভিন্ন ধরনের আইটি সেন্টার গুলো প্যাকেজ অনুযায়ী বিভিন্ন কোর্স করিয়ে থাকে। এ সকল কোর্সের মাধ্যমে প্রতিটি কাজ শেখানো হয়। চাইলে ফেসবুক মার্কেটিং কোর্সটি করে এর সম্পর্কে সকল কাজ শিখতে পারেন।

উপরোক্ত পন্থা গুলোর মধ্যে আপনার কাছে যেটি সহজ এবং পছন্দ হয় সেটি বেছে নিতে পারেন।

মোবাইল দিয়ে কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয়?

অনেকেরই ধারণা মোবাইল দিয়ে হয়তো ফেসবুক মার্কেটিং এর কাজগুলো সম্পন্ন করা সম্ভব হয় না। কিন্তু মোবাইল দিয়েও ফেসবুক মার্কেটিং এর কাজ করা সম্ভব। মোবাইল দিয়ে কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয় আমরা আপনাদের জানাবো।

  • মোবাইল দিয়ে ফেসবুক পেজের এড গুলো রান করতে পারবেন।
  • কাস্টমারদের সাথে প্রতিনিয়ত যোগাযোগের জন্য মোবাইল ব্যবহার করতে পারবেন।
  • প্রোডাক্টগুলোর জন্য যে কনটেন্ট তৈরি করবেন সেগুলো পেজে আপলোড করতে পারবেন।
  • ফ্রি এবং পেইড মার্কেটিং দুটোই মোবাইল দিয়ে করা সম্ভব।
  • ভালো ফোন দিয়ে প্রোডাক্টগুলোর সুন্দর করে ছবি তুলে পেজে আপলোড করতে পারবেন।
  • যেহেতু মোবাইল দিয়ে প্রায় সকলেই ফেসবুক চালায় সুতরাং মোবাইল দিয়ে অডিয়েন্স পর্যন্ত পৌঁছানো সম্ভব।
তাহলে বুঝতেই পারছেন মোবাইল দিয়ে ফেসবুক মার্কেটিং করা যায়। আপনার এবং আমার মত অসংখ্য মানুষ মোবাইল ব্যবহার করেই ফেসবুক মার্কেটিং করছে।

কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয়-শেষ কথা

ফেসবুক মার্কেটিং এর মাধ্যমে অসংখ্য মানুষ এখন ঘরে বসেই স্বাবলম্বী হচ্ছে। অনেকে হয়তো নিজের ব্যবসাকে প্রচার করছে। আবার অনেকে অন্যের ব্যবসা প্রচারণার মাধ্যমে ভালো অর্থ ইনকাম করতে পারছে। এর জন্য যে বেশি কিছু প্রয়োজন এমনটি নয়। ফেসবুক মার্কেটিং এর নিয়ম কানুন জানলে এবং কিছু টিপস অনুসরণ করে চললে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছানো সম্ভব। অনেকেই চিন্তা করে কিভাবে ফেসবুক মার্কেটিং করতে হয়? কাজটি হয়তো অনেক কঠিন। আসলে তেমন কিছুই নয়। তা নিশ্চয়ই আপনারা এতক্ষণে বুঝতে পেরেছেন।

প্রিয় পাঠকগণ, আমরা সর্বদাই চেষ্টা করি আপনাদের বোঝার সুবিধার্থে সহজ এবং স্পষ্ট ভাষায় আপনাদের প্রয়োজনীয় তথ্য প্রদান করার। আশা করি আর্টিকেলটি পড়ে ফেসবুক মার্কেটিং সম্পর্কে একটি পূর্ণ ধারণা পেয়েছেন। এ সম্পর্কিত আরো কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই কমেন্টে জানিয়ে দিবেন। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আমরা সঠিক উত্তরটি দেয়ার চেষ্টা করব। ধন্যবাদ।




Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url